গণফোরামের বিশেষ কাউন্সিলের সিদ্ধান্তে রেজা কিবরিয়াকে গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছে।

গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক হলেন রেজা কিবরিয়া

সুব্রত চৌধুরী বলেন, ‘নতুন কমিটির সভাপতি পুনরায় নির্বাচিত হয়েছেন ড. কামাল হোসেন। সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা মোহসীন মন্টুকে কেন্দ্রীয় কমিটির এক নম্বর সদস্য হিসেবে রাখা হয়েছে।’

প্রিয় ডেস্ক
ডেস্ক রিপোর্ট
প্রকাশিত: ০৫ মে ২০১৯, ১৭:৩১ আপডেট: ০৫ মে ২০১৯, ২৩:০২
প্রকাশিত: ০৫ মে ২০১৯, ১৭:৩১ আপডেট: ০৫ মে ২০১৯, ২৩:০২


গণফোরামের বিশেষ কাউন্সিলের সিদ্ধান্তে রেজা কিবরিয়াকে গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছে।

(প্রিয়.কম) আওয়ামী লীগ সরকারের সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এ এম এস কিবরিয়ার ছেলে রেজা কিবরিয়াকে গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছে।

৫ মে, রোববার বিকেল চারটার দিকে জাতীয় প্রেসক্লাবে গণফোরামের সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দেওয়া হয়। গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেনের পক্ষে দলের নতুন কমিটি ঘোষণা করেন নির্বাহী সভাপতি সুব্রত চৌধুরী।

গত ২৬ এপ্রিল গণফোরামের বিশেষ কাউন্সিল পাঁচ নেতাকে কমিটি করার ক্ষমতা দেওয়া হয়।

সুব্রত চৌধুরী বলেন, ‘নতুন কমিটির সভাপতি পুনরায় নির্বাচিত হয়েছেন ড. কামাল হোসেন। সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা মোহসীন মন্টুকে কেন্দ্রীয় কমিটির এক নম্বর সদস্য হিসেবে রাখা হয়েছে।’

রেজা কিবরিয়া ২০১৮ সালের ১৮ নভেম্বরে গণফোরামে আনুষ্ঠানিকভাবে যোগ দিয়েছিলেন। যোগদানের পাঁচ মাসের মধ্যেই রাজনীতিক জীবনের এ পর্যন্ত সবচেয়ে বড় রাজনৈতিক মাইলফলক স্পর্শ করলেন তিনি।

দায়িত্ব পেয়ে রেজা কিবরিয়া বলেন, ‘আমি ড. কামাল স্যারের নেতৃত্বে খুবই খুশি ও কৃতজ্ঞ। দায়িত্ব নিয়েই আমি সবার জন্য কাজ করব। তাদের নিয়ে কাজ করব যাদের নিয়ে কেউ করবে না।’

রেজা কিবরিয়ার বাবা আওয়ামী লীগ সরকারের অর্থমন্ত্রী শাহ এএসএম কিবরিয়া বিএনপি নেতৃত্বাধীন চারদলীয় জোট সরকারের আমলে হবিগঞ্জে বোমা বিস্ফোরণে নিহত হন। এ ঘটনায় দায়েরকৃত দুটি মামলায় বিএনপির একাধিক নেতা আসামি।

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টে যোগ দিয়ে সেই বিএনপির প্রতীক নিয়ে রেজা কিবরিয়া যখন নির্বাচনে লড়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন, তখন তা সবাইকে অবাক করে। আলোচনার ঝড় ওঠে দেশের রাজনৈতিক অঙ্গণে। তবে রেজা কিবরিয়া বলেছিলেন, বাবার হত্যার বিচার না হওয়ায় ক্ষোভ থেকে তিনি জাতীয় ঐক্যফ্রন্টে যোগ দিয়েছেন।

রেজা কিবরিয়া ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে হবিগঞ্জ-১ (বাহুবল-নবীগঞ্জ) আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে হেরে যান।

প্রিয় সংবাদ/কামরুল