মুশফিক-পুত্রের ‘লন্ডন ভাইবস’

জাতীয় দলের অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটারের ১ বছর পাঁচ মাস বয়সী ছেলেকেও দেখা গেছে লন্ডনে ঘুরে বেড়ানোর মুডে।

মুশাহিদ
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ০৫ জুলাই ২০১৯, ১৯:৫৯ আপডেট: ০৫ জুলাই ২০১৯, ১৯:৫৯
প্রকাশিত: ০৫ জুলাই ২০১৯, ১৯:৫৯ আপডেট: ০৫ জুলাই ২০১৯, ১৯:৫৯

(প্রিয়.কম) ইংল্যান্ড ও ওয়েলসের মাটিতে চলমান বিশ্বকাপ নিয়ে এই মুহূর্তে বুঁদ হয়ে রয়েছে বিশ্ব ক্রিকেট। বাংলাদেশি ভক্ত-সমর্থক ও ক্রিকেটপ্রেমীরাও এর ব্যতিক্রম নন। সবার নজর এখন ইংল্যান্ডে। বিশ্বকাপের এই উন্মাদনায় মাততে কেউ কেউ ইতোমধ্যে ইংল্যান্ড পাড়ি জমিয়েছেন। মাঠে উপস্থিত থেকে সমর্থন ও অনুপ্রেরণা যোগাচ্ছেন মাশরাফি-সাকিব-তামিমদের।

এই তালিকায় রয়েছেন ক্রিকেটারদের পরিবারের সদস্যরাও। ইংল্যান্ড বিশ্বকাপের শুরু থেকে জাতীয় দলের সঙ্গে রয়েছেন মাশরাফি বিন মুর্তজা, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের স্ত্রী-সন্তানরা। ওভাল, কার্ডিফ, ব্রিস্টল টনটন, নটিংহ্যাম, সাউদাম্পটন, এজবাস্টন কিংবা লর্ডস- জাতীয় দলের সঙ্গে থাকছেন তারা।

ম্যাচ চলাকালে গ্যালারিতে উপস্থিত থেকে বাংলাদেশ দলকে নিয়মিত উৎসাহ দিচ্ছেন ক্রিকেটারদের স্ত্রী-সন্তানরা। এ ছাড়া অবসর সময়ে ঘুরে বেড়ান ইংল্যান্ডের বিভিন্ন স্থান। এই তালিকা থেকে বাদ যাননি মুশফিকের ছোট্ট ছেলেও। জাতীয় দলের অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটারের ১ বছর পাঁচ মাস বয়সী ছেলেকেও দেখা গেছে লন্ডনে ঘুরে বেড়ানোর মুডে।

৪ জুলাই, বৃহস্পতিবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কয়েকটি ছবি পোস্ট করেছেন মুফিকের স্ত্রী জান্নাতুল কিফায়াত মন্ডি। ব্যক্তিগত ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট থেকে মন্ডির পোস্ট করা ছবিতে দেখা গেছে, লাল রঙের টি-শার্টের উপর চেক শার্ট পরেছে মুশফিকের ছেলে শাহরোজ রহিম মায়ান। এ সময় চোখে কালো রঙের সানগ্লাস পরে বিভিন্ন ভঙ্গিমায় পোজ দিতে দেখা যায় তাকে।

ছবির ক্যাপশনে মন্ডি লিখেন, ‘লন্ডন ভাইবস।’

২০১৩ সালের অক্টোবরে জান্নাতুল কেফায়াত মন্ডির সঙ্গে বাগদান সম্পন্ন হয় বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের অভিজ্ঞ ক্রিকেটার মুশফিকুর রহিমের। এর প্রায় এক বছর পর ২০১৪ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর এই জুটি বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়।

মুশফিকের স্ত্রী মন্ডি সম্পর্কে জাতীয় দলের আরেক অভিজ্ঞ ক্রিকেটার মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের শ্যালিকা। বিয়ের চার বছরের মাথায় ২০১৮ সালের ৫ ফেব্রুয়ারি এই তারকা দম্পতির ঘর আলো করে আসে ছেলে শাহরোজ রহিম মায়ান। এই মুহূর্তে বাবা-মায়ের সঙ্গে ইংল্যান্ডে অবস্থান করছে ছোট্ট মায়ান।