রাষ্ট্রপুঞ্জ গণভোট করাক ভারতে: দাবি করলেন মমতা, তীব্র নিন্দায় বিজেপি

আনন্দবাজার (ভারত) প্রকাশিত: ১৯ ডিসেম্বর ২০১৯, ২১:২১

এ বার রাষ্ট্রপুঞ্জের হস্তক্ষেপ চাইলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) বা এনআরসি এ দেশে কার্যকরী করা হবে কি না, তা গণভোটে নির্ধারিত হোক এবং সে গণভোট রাষ্ট্রপুঞ্জের তত্ত্বাবধানে করার, ভারত সরকারের নয়— বৃহস্পতিবার দিল্লির উদ্দেশে এই চ্যালেঞ্জই ছুড়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী। এবং তীব্র প্রতিক্রিয়াও তৈরি হয়েছে মমতার এই প্রস্তাবের বিরুদ্ধে। ‘‘উনি সব সীমা ছাড়িয়ে গিয়েছেন, ফলও পেয়ে যাবেন,’’ পাল্টা চ্যালেঞ্জ ছুড়েছেন রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ। সিএএ-র বিরুদ্ধে পর পর তিন দিন কলকাতা এবং হাওড়া জুড়ে বিরাট বিরাট মিছিল করেছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল চেয়ারপার্সন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজ্য সরকারের তরফ থেকে বিজ্ঞাপন দিয়ে ঘোষণা করেছেন যে, সিএএ এবং এনআরসি মানবেন না। শুধু বিজেপি নয়, রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়ও ওই বিজ্ঞাপনের বিরুদ্ধে মুখ খুলেছেন। বিজেপি নেতারা বলতে শুরু করেছেন, দেশের আইন মানবেন না বলে প্রকাশ্যে ঘোষণা করে এবং সরকারি বিজ্ঞাপন দিয়ে মমতা সংবিধান লঙ্ঘন করেছেন। কিন্তু বৃহস্পতিবার মমতা বুঝিয়ে দিলেন, তিনি আর পিছু হঠার মেজাজে নেই।
সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন
এই সম্পর্কিত
আরও