ইসরাইল-আরব চুক্তির নেপথ্যে

নয়া দিগন্ত প্রকাশিত: ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৭:৪৮

ইসরাইলের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করতে ঐতিহাসিক এক বৈঠকে যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটনে স্থানীয় সময় মঙ্গলবার মিলিত হওয়ার কথা উপসাগরীয় মুসলিম দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাত, বাহরাইন, ইসরাইল ও যুক্তরাষ্ট্রের উচ্চপর্যায়ের প্রতিনিধিদের। এর মধ্য দিয়ে ওই দেশগুলোর মধ্যে সম্পর্ক স্বাভাবিক করার কথা বলা হলেও এর নেপথ্যে রয়েছে অস্ত্রের ব্যবসা। এ নিয়ে দেশগুলো যে চুক্তি করবে তার মূল ফ্যাক্টর হলো অস্ত্র কেনাবেচা। সংযুক্ত আরব আমিরাত, বাহরাইন এই চুক্তিতে সম্মতি দেয়ার পর মার্কিন সরকারের কর্মকর্তারা একে ‘আব্রাহাম একর্ড’ হিসেবে অভিহিত করছেন। উপসাগরীয় সহযোগিতাবিষয়ক পরিষদ জিসিসির প্রথম দেশ এবং আরব দেশগুলোর মধ্যে তৃতীয় দেশ হিসেবে এই চুক্তিতে সম্মত হয় সংযুক্ত আরব আমিরাত। এই চুক্তি হলে আমিরাতের অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ডকে আর বর্জন করবে না ইসরাইল। ফলে যুক্তরাষ্ট্রের অত্যাধুনিক অস্ত্র আমিরাতে আসার পথ সুগম হবে। কিন্তু এ চুক্তিকে বিশ্বাসঘাতকতা বলে অভিহিত করেছেন ফিলিস্তিনিরা।
সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন
এই সম্পর্কিত

আরও